ফয়সাল আকরামের দুর্দান্ত পারফরম্যান্স, আরাফাত মিনহাস ও আজান আওয়াইসের অসাধারণ হাফ সেঞ্চুরির সাহায্যে মঙ্গলবার বিকেলে ডারউইনের ডিএক্সসি অ্যারেনায় পাপুয়া নিউ গিনির বিপক্ষে ২২৪ রানের বিশাল জয় পায় শাহিনরা।

৫০ ওভারের ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নিয়ে উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান আজান ও শামিল হুসেন প্রথম উইকেটে ৮৬ রানের পার্টনারশিপ গড়ে শক্ত ভিত্তি স্থাপন করেন। শামিল ৪৫ বলে ৪৫ রান করে সাত টি চার দিয়ে বিদায় নেন। অধিনায়ক রোহাইল নাজির (৫ বলে ২ রান) শীঘ্রই এটি অনুসরণ করেছিলেন, তবে বাঁহাতি আজান ওয়াহাজ রিয়াজের মতো সঙ্গী খুঁজে পেয়েছিলেন। ২৮তম ওভারে চার্লস আমিনির হাতে ওয়াহাজ (৩৫ বলে ৩৬ রান, ২ টি চার, ১ ছক্কা) পড়ে যাওয়ার আগে তৃতীয় উইকেটে ৫৭ রানের জুটি গড়েন এই জুটি।

শাহিনদের পক্ষে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক আজান (৯৪ বলে ৭২ রান, ৬ চার) শেষ পর্যন্ত ৩০.৪ ওভারে চার উইকেটে ১৭০ রান করে দলকে বিদায় জানান। টপ এন্ড টি-টোয়েন্টি সিরিজে এর আগে দুটি হাফ সেঞ্চুরি করা শাওয়াইজ ইরফান ১২ বলে মাত্র ১৩ রান করে তাড়াতাড়ি আউট হন। পাঁচ নম্বরে থাকা মোহাম্মদ ইরফান খান ৪০ বলে ৪১ রান করেন, যার মধ্যে চারটি বাউন্ডারি ছিল।

আরাফাত মিনহাসের ৩৪ বলে সাত চার ও একটি ছক্কাসহ দ্রুত ৫৬ রান করায় শাহীনের ৩২৩ রান উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পায়। সপ্তম উইকেটে আহমেদ খানের (২৮ বলে ৩১ রান, ২ চার) সঙ্গে ৭৪ রানের বিশাল জুটি গড়েন আরাফাত।

পাপুয়া নিউ গিনির চার্লস আমিনি ৬১ রানে ৩ উইকেট নিয়ে সবচেয়ে কার্যকর বোলার হিসেবে আবির্ভূত হন।

জবাবে, পিএনজি ব্যাটসম্যানরা তাদের লক্ষ্য অর্জনে কোনও গতি প্রতিষ্ঠা করতে লড়াই করেছিল, নিয়মিত উইকেট হারিয়েছিল এবং শেষ পর্যন্ত ২২ ওভারে মাত্র ৯৯ রানে আউট হয়েছিল। বাঁহাতি কব্জির স্পিনার ফয়সাল পাঁচ ওভারে মাত্র ১৭ রান দিয়ে পাঁচ উইকেট নেন, যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য ২২ টি ডট বল রয়েছে। ফাস্ট বোলার আহমেদ (৬ ওভারে ৪৩ রান দিয়ে ৩ উইকেট) এবং আমির হাসান (৬ ওভারে ২৪ রানে ২ উইকেট) মিলে বাকি পাঁচ উইকেট নেন।

শাহীনদের এজেন্ডায় আগামীকাল একই ভেন্যুতে দিবা-রাত্রির ম্যাচে নর্দান টেরিটরি স্ট্রাইকসের বিপক্ষে শোডাউন। ৫০ ওভারের ম্যাচটি শুরু হবে স্থানীয় সময় বেলা সাড়ে ১৩টায়। দেশে ফেরার আগে অস্ট্রেলিয়ায় শাহীনদের শেষ ম্যাচ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

পিএনজিকে ২২৪ রানে হারাল পাকিস্তান শাহীনস

পাকিস্তান শাহীনস: ৩২৩/৮, ৫০ ওভার (আজান আওয়াইস ৭২, আরাফাত মিনহাস ৫৬, শামিল হোসেন ৪৫, মোহাম্মদ ইরফান খান ৪১; আরাফাত মিনহাস ৭২)। চার্লস আমিনি ৩-৬১)

পাপুয়া নিউ গিনি: ৯৯ রানে অলআউট, ২২ ওভার (আসাদুল্লাহ ভালা ২৩; ফয়সাল আকরাম ৫-১৭, আহমেদ খান ৩-৪০, আমির হাসান ২-২৪)