[fusion_builder_container type=”flex” hundred_percent=”no” hundred_percent_height=”no” min_height_medium=”” min_height_small=”” min_height=”” hundred_percent_height_scroll=”no” align_content=”stretch” flex_align_items=”flex-start” flex_justify_content=”flex-start” flex_column_spacing=”” hundred_percent_height_center_content=”yes” equal_height_columns=”no” container_tag=”div” menu_anchor=”” hide_on_mobile=”small-visibility,medium-visibility,large-visibility” status=”published” publish_date=”” class=”” id=”” spacing_medium=”” margin_top_medium=”” margin_bottom_medium=”” spacing_small=”” margin_top_small=”” margin_bottom_small=”” margin_top=”” margin_bottom=”” padding_dimensions_medium=”” padding_top_medium=”” padding_right_medium=”” padding_bottom_medium=”” padding_left_medium=”” padding_dimensions_small=”” padding_top_small=”” padding_right_small=”” padding_bottom_small=”” padding_left_small=”” padding_top=”” padding_right=”” padding_bottom=”” padding_left=”” link_color=”” link_hover_color=”” border_sizes=”” border_sizes_top=”” border_sizes_right=”” border_sizes_bottom=”” border_sizes_left=”” border_color=”” border_style=”solid” box_shadow=”no” box_shadow_vertical=”” box_shadow_horizontal=”” box_shadow_blur=”0″ box_shadow_spread=”0″ box_shadow_color=”” box_shadow_style=”” z_index=”” overflow=”” gradient_start_color=”” gradient_end_color=”” gradient_start_position=”0″ gradient_end_position=”100″ gradient_type=”linear” radial_direction=”center center” linear_angle=”180″ background_color=”” background_image=”” skip_lazy_load=”” background_position=”center center” background_repeat=”no-repeat” fade=”no” background_parallax=”none” enable_mobile=”no” parallax_speed=”0.3″ background_blend_mode=”none” video_mp4=”” video_webm=”” video_ogv=”” video_url=”” video_aspect_ratio=”16:9″ video_loop=”yes” video_mute=”yes” video_preview_image=”” render_logics=”” absolute=”off” absolute_devices=”small,medium,large” sticky=”off” sticky_devices=”small-visibility,medium-visibility,large-visibility” sticky_background_color=”” sticky_height=”” sticky_offset=”” sticky_transition_offset=”0″ scroll_offset=”0″ animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=”” filter_hue=”0″ filter_saturation=”100″ filter_brightness=”100″ filter_contrast=”100″ filter_invert=”0″ filter_sepia=”0″ filter_opacity=”100″ filter_blur=”0″ filter_hue_hover=”0″ filter_saturation_hover=”100″ filter_brightness_hover=”100″ filter_contrast_hover=”100″ filter_invert_hover=”0″ filter_sepia_hover=”0″ filter_opacity_hover=”100″ filter_blur_hover=”0″][fusion_builder_row][fusion_builder_column type=”1_1″ align_self=”auto” content_layout=”column” align_content=”flex-start” valign_content=”flex-start” content_wrap=”wrap” spacing=”” center_content=”no” link=”” target=”_self” link_description=”” min_height=”” hide_on_mobile=”small-visibility,medium-visibility,large-visibility” sticky_display=”normal,sticky” class=”” id=”” type_medium=”” type_small=”” order_medium=”0″ order_small=”0″ dimension_spacing_medium=”” dimension_spacing_small=”” dimension_spacing=”” dimension_margin_medium=”” dimension_margin_small=”” margin_top=”” margin_bottom=”” padding_medium=”” padding_small=”” padding_top=”” padding_right=”” padding_bottom=”” padding_left=”” hover_type=”none” border_sizes=”” border_color=”” border_style=”solid” border_radius=”” box_shadow=”no” dimension_box_shadow=”” box_shadow_blur=”0″ box_shadow_spread=”0″ box_shadow_color=”” box_shadow_style=”” overflow=”” background_type=”single” gradient_start_color=”” gradient_end_color=”” gradient_start_position=”0″ gradient_end_position=”100″ gradient_type=”linear” radial_direction=”center center” linear_angle=”180″ background_color=”” background_image=”” background_image_id=”” background_position=”left top” background_repeat=”no-repeat” background_blend_mode=”none” render_logics=”” filter_type=”regular” filter_hue=”0″ filter_saturation=”100″ filter_brightness=”100″ filter_contrast=”100″ filter_invert=”0″ filter_sepia=”0″ filter_opacity=”100″ filter_blur=”0″ filter_hue_hover=”0″ filter_saturation_hover=”100″ filter_brightness_hover=”100″ filter_contrast_hover=”100″ filter_invert_hover=”0″ filter_sepia_hover=”0″ filter_opacity_hover=”100″ filter_blur_hover=”0″ animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=”” last=”no” border_position=”all”][fusion_content_boxes layout=”icon-with-title” columns=”1″ link_type=”” button_span=”” link_area=”” link_target=”” icon_align=”left” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_delay=”” animation_offset=”” hide_on_mobile=”small-visibility,medium-visibility,large-visibility” class=”” id=”” title_size=”” heading_size=”2″ title_color=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” body_color=”” backgroundcolor=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”no” iconcolor=”” icon_circle=”” icon_circle_radius=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” icon_size=”” icon_hover_type=”” hover_accent_color=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” margin_top=”” margin_bottom=””][fusion_content_box title=”ম্যাচের বিবরণ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২৩, শুক্রবার কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে ২০২৩ এশিয়া কাপ ওয়ানডের ষষ্ঠ ম্যাচে মুখোমুখি হবে ভারত ও বাংলাদেশ।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ম্যাচ প্রিভিউ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

এই টুর্নামেন্টে ভারতের পারফরম্যান্স অসাধারণ কিছু নয়। তারা শীর্ষ পারফর্মিং দল হিসাবে দাঁড়িয়েছে, টুর্নামেন্টের ফাইনালে জায়গা নিশ্চিত করেছে। উল্লেখ্য, পুরো প্রতিযোগিতাজুড়েই অপরাজিত থাকার রেকর্ড ধরে রেখেছে ভারত। বিপরীতে বাংলাদেশের পারফরম্যান্স হতাশাজনক। যদিও তারা সুপার ফোর পর্বে পৌঁছানোর জন্য গ্রুপ ম্যাচগুলিতে ভাল করেছিল, তারা সুপার ফোরের সমস্ত ম্যাচে পরাজয়ের মুখোমুখি হয়েছিল, কার্যকরভাবে টুর্নামেন্টের ফাইনালের দৌড় থেকে তাদের বাদ দিয়েছিল। আসন্ন ম্যাচে তারা টুর্নামেন্টের স্ট্যান্ডআউট দলের মুখোমুখি হবে।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ভারত পর্যালোচনা” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নিয়ে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৪১ রানের বিশাল জয় নিয়ে এই ম্যাচে প্রবেশ করে ভারত। যাইহোক, তাদের ব্যাটিং পারফরম্যান্স কাঙ্ক্ষিত অনেক কিছু রেখে গেছে, কারণ তারা ৪৯.১ ওভার ের পরে তাদের পুরো দল প্যাভিলিয়নে ফিরে আসার আগে মোট ২১৩ রান সংগ্রহ করতে পেরেছিল।
বর্তমানে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা অধিনায়ক রোহিত শর্মা এই ম্যাচে তার টানা দ্বিতীয় হাফ সেঞ্চুরি করেছেন। তিনি ৪৮ বলে ৫৩ রানের অবদান রাখেন, সাতটি বাউন্ডারি এবং দুটি বিশাল ছক্কা দিয়ে তার ইনিংসটি পূর্ণ করেন।

রোহিত শর্মার ধারাবাহিক ফর্ম আসন্ন ম্যাচেও অব্যাহত থাকবে বলে আশা করা হচ্ছে। এদিকে, কেএল রাহুলও এই টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত পারফর্ম করেছেন, বিশেষত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সেঞ্চুরি করা এবং শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে আগের ম্যাচে সম্মানজনক ৩৯ রান করা। সেই ম্যাচে তিনি ৪৪ টি বলের মুখোমুখি হয়েছিলেন এবং দুটি বাউন্ডারি মেরেছিলেন।

ইশান কিষাণ স্কোরবোর্ডে ৩৩ রান যোগ করেন এবং অক্ষর প্যাটেল দলের সংগ্রহে ২৬ রানের অবদান রাখেন।

ভারতের বোলিং ইউনিট এই টুর্নামেন্ট জুড়ে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছে, শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে আগের ম্যাচে তাদের পারফরম্যান্সের উদাহরণ। ৪১.৩ ওভারে মাত্র ১৭২ রানে পুরো শ্রীলঙ্কা দলকে অলআউট করে তারা তাদের ২১৪ রানের লক্ষ্য সফলভাবে রক্ষা করে।

কুলদীপ যাদব ৯.৩ ওভারে ৪৩ রান খরচ করে ৪ উইকেট নিয়ে ভারতের পক্ষে সর্বাধিক সফল বোলার হিসাবে আবির্ভূত হন। জাসপ্রিত বুমরাহ ও রবীন্দ্র জাদেজা দুটি করে উইকেট নেন এবং মোহাম্মদ সিরাজ ও হার্দিক পান্ডিয়া একটি করে উইকেট নেন।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”বাংলাদেশ রিভিউ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

নিজেদের সাম্প্রতিক ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে ২১ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নিলেও তাদের বোলিং ইউনিট ৫০ ওভারে মোট ২৫৭ রান দিয়ে সর্বোত্তম পারফরম্যান্স দেখাতে হিমশিম খায়।

বাংলাদেশের হয়ে সবচেয়ে সফল বোলার হিসেবে আবির্ভূত হন হাসান মাহমুদ, ৯ ওভারে ৫৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন। তাসকিন আহমেদও তিনটি উইকেট পেয়েছিলেন, তবে তিনি উল্লেখযোগ্য সংখ্যক রান দিয়েছিলেন, দশ ওভারে তাকে ৬২ রান দিতে হয়েছিল। শরিফুল ইসলাম প্রশংসনীয় প্রচেষ্টা চালিয়ে আট ওভারে দুটি উইকেট নেন, যদিও তিনি ৪৮ রান দিয়েছিলেন। তবে মেহেদী হাসান মিরাজ, নাসুম আহমেদ ও অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের মতো বোলাররা কোনো উইকেট নিতে পারেননি।

আশাব্যঞ্জক ব্যাটিং প্রদর্শন সত্ত্বেও ২৫৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ৪৮.১ ওভারে পুরো দল ২৩৬ রানে অলআউট হয়ে যায়। বাংলাদেশের হয়ে ৮২ রানের ইনিংস খেলেন তৌহিদ হৃদয়। তিনি তার ইনিংসের সময় ৯৭ বলের মুখোমুখি হন এবং সাতটি বাউন্ডারির পাশাপাশি একটি বিশাল ছক্কা মেরেছিলেন। মুশফিকুর রহিম ২৯ ও মেহেদী হাসান মিরাজ ২৮ রান সংগ্রহ করেন।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”প্রিয় দল” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

ভারত একটি শক্তিশালী এবং অভিজ্ঞ ওয়ানডে ক্রিকেট দল হিসাবে দাঁড়িয়েছে এবং এটি স্পষ্ট যে, কমপক্ষে কাগজে-কলমে তারা বাংলাদেশের চেয়ে যথেষ্ট সুবিধা অর্জন করেছে। আমাদের এশিয়া কাপের ভবিষ্যদ্বাণী এই ম্যাচে সম্ভাব্য বিজয়ী হিসাবে ভারতকে দৃঢ়ভাবে সমর্থন করে। বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ কারণ ভারতের পছন্দসই অবস্থানে অবদান রাখে:

ঐতিহাসিক আধিপত্য: বাংলাদেশের সাথে তাদের বেশিরভাগ লড়াইয়ে ভারত ধারাবাহিকভাবে বিজয়ী হয়েছে, যা একটি শক্তিশালী ট্র্যাক রেকর্ডকে প্রতিফলিত করে।

সুপার ফোর ব্যর্থতা: এই টুর্নামেন্টের সুপার ফোর পর্বে বাংলাদেশের পারফরম্যান্স দুর্দান্তের চেয়ে কম, উভয় ম্যাচে পরাজয় তাদের বর্তমান ফর্মকে তুলে ধরেছে।

বোলিং দক্ষতা: ভারতের বোলাররা এই টুর্নামেন্টে তাদের দক্ষতা প্রদর্শন করেছে, শক্তিশালী পারফরম্যান্স দিয়েছে, যা তাদের প্রতিযোগিতামূলক প্রান্তকে আরও বাড়িয়ে তোলে।

ব্যাটিং পাওয়ার হাউস: ভারতের ব্যাটিং অর্ডার এমন একটি ব্যাটিং অর্ডার রয়েছে যা বাংলাদেশের লাইনআপের তুলনায় উল্লেখযোগ্যভাবে বেশি শক্তিশালী এবং সুসংগঠিত, যা ফায়ারপাওয়ারের দিক থেকে তাদের আলাদা করে তোলে।

ফাইনালের স্থান: ভারত ইতিমধ্যে টুর্নামেন্টের ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে, শীর্ষ প্রতিদ্বন্দ্বী হিসাবে তার মর্যাদাকে আরও তুলে ধরেছে।

এই সমস্ত বিষয় বিবেচনা করে, আমাদের এশিয়া কাপের ভবিষ্যদ্বাণী অনুসারে এই ম্যাচে জয়ের জন্য ভারত পছন্দসই দল হিসাবে আবির্ভূত হবে।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”জয়ের সুযোগ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

ভারত তাদের র্যাঙ্কের মধ্যে অভিজ্ঞ এবং তরুণ ওডিআই প্রতিভাগুলির মিশ্রণ নিয়ে গর্ব করে। তাদের ব্যাটিং লাইনআপ বিশেষভাবে শক্তিশালী, ওয়ানডে ফরম্যাটে বিখ্যাত পাওয়ার হিটারদের নিয়ে। ফলস্বরূপ, আজকের ম্যাচে ভারতের জয়ের সম্ভাবনা উল্লেখযোগ্যভাবে উন্নত হয়েছে। আজকের ক্রিকেট ম্যাচের পূর্বাভাস নীচে দেওয়া হল:

এই ষষ্ঠ টেস্টে ভারতের জয়ের সম্ভাবনা ৭০ শতাংশ।
অন্যদিকে ষষ্ঠ টেস্টে জয়ের ৩০ শতাংশ সম্ভাবনা রয়েছে বাংলাদেশের।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”টস ভবিষ্যদ্বাণী” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

এশিয়া কাপ ২০২৩-এ টস ম্যাচের ফলাফলের উপর উল্লেখযোগ্য প্রভাব ফেলবে বলে মনে করা হচ্ছে। স্কোরবোর্ডে একটি উল্লেখযোগ্য স্কোর সংগ্রহ করা একটি উল্লেখযোগ্য সুবিধা হিসাবে বিবেচিত হয়, বিশেষত এই জাতীয় উচ্চ-স্টেক এনকাউন্টারগুলিতে। আমাদের ভবিষ্যদ্বাণী অনুযায়ী, টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিতে পারে দলটি।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”পিচ রিপোর্ট” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে এশিয়া কাপের ষষ্ঠ ম্যাচটি। এই ভেন্যুটি একটি সমতল ব্যাটিং পৃষ্ঠ সরবরাহ করার জন্য পরিচিত যা বোলারদের যথেষ্ট গতি এবং বাউন্স সরবরাহ করে। যাইহোক, অন্যান্য পিচের তুলনায়, এই ট্র্যাকটি ধীর গতির হয় এবং স্পিনারদের যথেষ্ট পছন্দ করে। এই ষষ্ঠ টেস্টে আমরা আশা করছি পিচ আরও ধীর হয়ে যাবে, যা ব্যাটসম্যানদের জন্য বাড়তি চ্যালেঞ্জ তৈরি করবে। ২৭০ থেকে ২৮০ রানের মধ্যে স্কোর অর্জন করা তাড়া করা দলের জন্য একটি কঠিন চ্যালেঞ্জ হিসাবে প্রমাণিত হতে পারে।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”আবহাওয়া প্রতিবেদন” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

কলম্বোতে বর্তমানে ঘন ঘন বৃষ্টিপাত হচ্ছে, এবং শহরের আবহাওয়ার পূর্বাভাস থেকে জানা যায় যে এটি অতিরিক্ত গরম হবে না, সম্ভবত খেলোয়াড়দের জন্য একটি শারীরিক চ্যালেঞ্জ তৈরি করবে। ম্যাচের দিন কিছুটা মেঘ লাগতে পারে, তবে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে কোনও বৃষ্টির ইঙ্গিত পাওয়া যায়নি। অতএব, আমরা আশা করি যে ষষ্ঠ ম্যাচটি কোনও বাধা ছাড়াই এগিয়ে যাবে, একটি সম্পূর্ণ এবং নিরবচ্ছিন্ন খেলার অনুমতি দেবে।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ভারত বনাম বাংলাদেশ সম্ভাব্য একাদশ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

ভারত একাদশ: রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), শুভমান গিল, বিরাট কোহলি, লোকেশ রাহুল, ইশান কিষাণ, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা, অক্ষর প্যাটেল, কুলদীপ যাদব, জসপ্রীত বুমরাহ, মোহাম্মদ সিরাজ।

বাংলাদেশ একাদশ: সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), মোহাম্মদ নাঈম শেখ, মেহেদী হাসান মিরাজ, লিটন দাস, তৌহিদ হৃদয়, মুশফিকুর রহিম, শামীম হোসেন, তাসকিন আহমেদ, শরিফুল ইসলাম, হাসান মাহমুদ, নাসুম আহমেদ।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ম্যাচের তারিখ ও সময়” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

তারিখ: শুক্রবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩
সময়: ০৯:৩০ পূর্বাহ্ন জিএমটি / ০২:৩০ অপরাহ্ণ স্থানীয় / ০৩:০০ অপরাহ্নি আইএসটি

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”স্থানের বিবরণ” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

স্টেডিয়াম: আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়াম
অবস্থান: কলম্বো, ভারত
খোলা: ১৯৮৬
ক্যাপাসিটি: ৩৫,০০০
পরিচিত: খেতারামা স্টেডিয়াম (জুন ১৯৯৪ পর্যন্ত)
সমাপ্তি: ক্ষেতারামা শেষ, স্কোরবোর্ড শেষ
টাইম জোন: ইউটিসি +০৫:৩০
হোম: ভারত
ফ্লাডলাইট: হ্যাঁ

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ওয়ানডেতে ভেন্যু স্কোরিং প্যাটার্ন” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

সর্বমোট ম্যাচ: ১৫৮
প্রথমে ব্যাট করে ম্যাচ জয়ী: ৮৭
ম্যাচ জয়ী প্রথম বোলিং: ৬১
গড় ১ম ইন স্কোর: ২৩২
গড় ২য় ইন স্কোর: ১৯১
সর্বাধিক রেকর্ড করা মোট: আইএনডি বনাম এসএল দ্বারা ৩৭৫/৫ (৫০ ওভার)
সর্বনিম্ন মোট রেকর্ড: এসএলডাব্লু বনাম ইএনজিডাব্লু দ্বারা ৭৮/১০ (৩৩.১ ওভার)
সর্বোচ্চ রান তাড়া: ২৯২/৪ (৪৮.৩ ওভার) শ্রীলঙ্কা বনাম অস্ট্রেলিয়া
সর্বনিম্ন স্কোর: ডাব্লুআইডাব্লু বনাম এসএলডাব্লু দ্বারা ১৭০/১০ (৪৯.২ ওভার)

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”ভারত স্কোয়াড” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), লোকেশ রাহুল ( উইকেটরক্ষক), শুভমান গিল, বিরাট কোহলি, ইশান কিষাণ, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা, অক্ষর প্যাটেল, জসপ্রীত বুমরাহ, কুলদীপ যাদব, মোহাম্মদ সিরাজ, মোহাম্মদ শামি, সূর্যকুমার যাদব, শ্রেয়াস আইয়ার, শার্দুল ঠাকুর, প্রসিদ্ধ কৃষ্ণা, তিলক ভার্মা।

[/fusion_content_box][fusion_content_box title=”বাংলাদেশ স্কোয়াড” backgroundcolor=”” hue=”” saturation=”” lightness=”” alpha=”” icon=”” iconflip=”” iconrotate=”” iconspin=”” iconcolor=”” circlecolor=”” circlebordersize=”” circlebordercolor=”” outercirclebordersize=”” outercirclebordercolor=”” image=”” image_id=”” image_max_width=”” link=”” linktext=”Read More” link_target=”” animation_type=”” animation_direction=”left” animation_speed=”0.3″ animation_offset=””]

সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), মোহাম্মদ নাঈম শেখ, মেহেদী হাসান মিরাজ, লিটন দাস, তৌহিদ হৃদয়, শামীম হোসেন, নাসুম আহমেদ, তাসকিন আহমেদ, শরিফুল ইসলাম, হাসান মাহমুদ, মুস্তাফিজুর রহমান, মেহেদী হাসান মিরাজ, এনামুল হক বিজয়, আফিফ হোসেন ধ্রুব, তানজিদ হাসান ও তানজিম হাসান সাকিব।

[/fusion_content_box][/fusion_content_boxes][/fusion_builder_column][/fusion_builder_row][/fusion_builder_container]